আজ রবিবার, ২৪ জানুয়ারী ২০২১, ০৯:৫১ অপরাহ্ন

Logo
জয়ীদের উইটসা অ্যাওয়ার্ড সম্মাননা দিল বিসিএস

জয়ীদের উইটসা অ্যাওয়ার্ড সম্মাননা দিল বিসিএস

অনলাইন ডেস্ক:

তথ্যপ্রযুক্তির অলিম্পিক খ্যাত ওয়ার্ল্ড কংগ্রেস অব আইটি (ডব্লিউসিআইটি ২০২০) এ ‘উইটসা আইসিটি এক্সসিলেন্স অ্যাওয়ার্ড’সম্প্রতি মালয়েশিয়াতে ভার্চুয়ালি অনুষ্ঠিত হয়। এতে নয়টি বিভাগের মধ্যে বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে দেশের ছয়টি তথ্যপ্রযুক্তি সংশ্লিষ্ট প্রকল্প সম্মাননা অর্জন করে।

২৮ ডিসেম্বর সোমবার এ উপলক্ষে বাংলাদেশ কম্পিউটার সমিতি (বিসিএস) রাজধানীর আগারগাঁওয়ের আইসিটি টাওয়ারের বিসিসি অডিটরিয়ামে ‘উইটসা অ্যাওয়ার্ড সেলিব্রেশন ২০২০’ আয়োজন করে।

বিসিএস সভাপতি মো. শাহিদ-উল-মুনীরে সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের (আইসিটি) প্রতিমন্ত্রী জুনায়েদ আহমেদ পলক ভার্চুয়ালে যুক্ত ছিলেন। বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিভাগের জ্যেষ্ঠ সচিব এন এম জিয়াউল আলম এবং বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের (বিসিসি) নির্বাহী পরিচালক পার্থ প্রতিম দে।

বিশেষ অতিথি হিসেবে ভার্চুয়ালি যুক্ত ছিলেন ওয়ার্ল্ড ইনফরমেশন টেকনোলজি অ্যান্ড সার্ভিসেস অ্যালায়েন্স’র (উইটসা) চেয়ারম্যান ইয়ানিস সিরোস, সদ্য বিদায়ী চেয়ারম্যান ইভোনি চিউ এবং একই সংগঠনের মহাসচিব ড. জেমস এইচ. পয়সান্ট।

আইসিটি প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক বলেন, এই কোভিডকালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে এবং ডিজিটাল বাংলাদেশের আর্কিটেক্ট সজীব ওয়াজেদ জয়ের সহযোগিতা, সুপরামর্শ এবং তত্ত্বাবধানে শিক্ষা, স্বাস্থ্য, প্রশাসনিক ও বাণিজ্যিক এবং বিচারিক কার্যক্রম সাড়ে নয় মাস চালু রাখতে পেরেছি। ফলস্বরূপ আমরা উইটসার কাছ থেকে স্বীকৃতি পেয়েছি।

প্রধানমন্ত্রীর উপদেষ্টা সজীব ওয়াজেদ জয়ের উদ্ধৃতি দিয়ে তিনি বলেন, আমরা অনুকরণ করব না, আমরা উদ্ভাবন করব। উদ্ভাবনী এবং সৃজনশীলতা দিয়েই জ্ঞান ভিত্তিক উন্নত ডিজিটাল বাংলাদেশ গড়ে তুলব।

তিনি আরও বলেন, ২০১৬ সালে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ইনোভেশন ডিজাইন অ্যান্ড এন্টারপ্রনোউরশিপ একাডেমি তৈরি করে দিয়েছিলেন। সেই একাডেমি মাত্র চার বছরের মধ্যে একটি দুইটি নয়, একশ আটান্নটি কোম্পানিকে মনিটরিং, মেন্টরিং এবং ফান্ডিং করে উদ্যোক্তা হিসেবে প্রতিষ্ঠিত করতে সহযোগিতা করেছে।

বাংলাদেশের তথ্যপ্রযুক্তি খাতের অগ্রগতির প্রশংসা করে উইটসার মহাসচিব ড. জেমস এইচ. পয়সান্ট বলেন, বাংলাদেশ যেভাবে এগিয়ে যাচ্ছে তাতে আগামীর বিশ্বকে প্রযুক্তি খাতে নেতৃত্ব দেয়ার দাবিদার।

অনুষ্ঠানে ছয় প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিদের হাতে ক্রেস্ট ও সম্মাননা তুলে দেন অতিথিরা। এসময় বিজয়ী প্রতিষ্ঠানগুলোর প্রতিনিধিরা তাদের অভিজ্ঞতাগুলো উপস্থাপন করেন।

অনুষ্ঠানে আইসিটি বিভাগের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তা, বিসিএস এর সহসভাপতি মো. জাবেদুর রহমান শাহীন, মহাসচিব মুহাম্মদ মনিরুল ইসলাম, যুগ্ম মহাসচিব মো. মুজাহিদ আল বেরুনী সুজন, কোষাধ্যক্ষ মো. কামরুজ্জামান ভূঁইয়া, পরিচালক মোশারফ হোসেন সুমন ও মো. রাশেদ আলী ভূঁঞাসহ বিসিএস সদস্য, তথ্যপ্রযুক্তি খাতের উদ্যোক্তা এবং বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন।


© স্বত্ব ২০২০ | About-US | Privacy-PolicyContact