আজ রবিবার, ১৮ Jul ২০২১, ০২:৫১ অপরাহ্ন

Logo
সংবাদ শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুরে ১৭দিনে করোনায় মৃত্যু ৭ ,আক্রান্ত ৭৭৭জন লক্ষ্মীপুরে যুবলীগ নেতা ও ইউপি চেয়ারম্যান আহসান উল্যাহ হিরন গ্রেপ্তার নভেম্বরে এসএসসি ও ডিসেম্বরে হতে পারে এইচএসসি পরীক্ষা: শিক্ষামন্ত্রী লঞ্চে যাত্রীর চাপ, স্বাস্থ্যবিধি উধাও লক্ষ্মীপুরে ৬ ইউপি চেয়ারম্যানের শপথ গ্রহন লক্ষ্মীপুরে স্বেচ্ছাসেবী সংগঠনের মাঝে অক্সিজেন সিলিন্ডার বিতরন বৃহস্পতিবার থেকে চলবে গণপরিবহন, খুলবে দোকানপাট লক্ষ্মীপুরে ‘খুঁজে খুঁজে সহায়তা পৌঁছে দিচ্ছেন সাংবাদিক জয়’ শিরোপা অবশেষে মেসির আর্জেন্টিনার ঠাকুরগাঁওয়ে ডিজিটাল নিরাপত্তা আইনের মামলায় সাংবাদিক তানুকে গ্রেপ্তার,মুক্তির দাবী
লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপ-নির্বাচন ও ৬টি ইউপির প্রতিটি কেন্দ্রই যাচ্ছে নির্বাচনী সামগ্রী

লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপ-নির্বাচন ও ৬টি ইউপির প্রতিটি কেন্দ্রই যাচ্ছে নির্বাচনী সামগ্রী

লক্ষ্মীপুর প্রতিনিধি.
লক্ষ্মীপুর ২ আসনের উপ-নির্বাচন ও রামগতি এবং কমলনগর উপজেলার ৬টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে প্রতিটি কেন্দ্রকে ঝুকিপূর্ণ ঘোষনা করে সুষ্ঠ ও শান্তিপূর্ণ ভোট গ্রহনের লক্ষ্য ব্যাপক নিরাপত্তা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। প্রতিটি কেন্দ্রে আইনশৃংখলা বাহিনীর পাশাপাশি নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের টহল অব্যাহত থাকবে বলে জানিয়েছেন কুমিল্লা আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. দুলাল তালুকদার।
তবে টানাবৃষ্টিতে ভোগান্তিতে পড়ছে নির্বাচনী কাজে নিয়োজিতরা। বৃষ্টি উপেক্ষা করে দুপুর থেকে লক্ষ্মীপুর-২ আসনে উপ-নির্বাচনে প্রতিটি কেন্দ্রে নির্বাচনী সামগ্রী পৌঁছানো শুরু হয়েছে। এ আসনে নির্বাচন হবে ইভিএমে। আওয়ামীলীগ মনোনীত প্রার্থী এডভোকেট নুর উদ্দিন চৌধুরী নয়ন ও জাতীয় পার্টির শেখ ফয়েজ উল্যাহ শিপন নির্বাচনে প্রতিদ্বন্ধিতা করছেন।

এ আসনের মোট ভোটার সংখ্যা ৪ লাখ ২ হাজার ৯শ ৬৩জন। এর মধ্যে পুরুষ ২ লাখ ৪ হাজার ৬শ ৬৪জন এবং নারী ভোটার ১লাখ ৯৮ হাজার ২শ ৯৯ জন। কেন্দ্রের সংখ্যা রয়েছে ১৩৬টি। ২১ জুন সকাল আট থেকে ভোট গ্রহন শুরু হয়ে একটানা চলবে বিকেল ৪টায় পর্যন্ত।

ভোটারদের দাবী, লক্ষ্মীপুর-২আসনের উপ-নির্বাচন ও ইউপি নির্বাচন নিয়ে তেমন মাথা ব্যাথা নেই ভোটারদের। বিএনপি ভোটে না আসায় ভোটার ও সাধারন মানুষের আগ্রহ নেই বললে চলে। তারপর যারা কেন্দ্রে ভোট দিতে যাবেন,যেন নিরাপদে ভোট দিতে পারে। সেটা নিশ্চিত করার দাবী জানান ভোটাররা। পাশাপাশি ভোটকে কেন্দ্র করে যেন, কোন ধরনের অপ্রীতিকর ঘটনা ও মারামারি হানাহানি না হয় সেদিকে প্রশাসনকে নজর দেয়ার আহবান জানান তারা।

এ দিকে জাতীয় পার্টির প্রার্থী শেখ ফয়েজ উল্যাহ শিপন অভিযোগ করে বলেন, আওয়ামীলীগের প্রার্থী এডভোকেট নুর উদ্দিন চৌধুরী নয়নের কর্মীরা তার নেতাকর্মীদের হুমকি-ধুমকি দিচ্ছে। যেন তারা কেন্দ্রে না আসতে পারে। কেউ ভোট দিলেও এমপি আর না দিলেও এমপি। ইতিমধ্যে এ ধরনের কথা বার্তা বলে ভোটারদের ভয়ভীতির অভিযোগ। তারপরও নির্বাচন থেকে সরে দাড়াবেন না তিনি। শেষ পর্যন্ত মাঠে থাকবেন বলে আশা লক্ষ্মীপুর-২ আসনের উপ-নির্বাচনে জাতীয় পার্টির প্রার্থী শেখ ফয়েজ উল্যাহ শিপনের।

অপরদিকে নির্বাচনী মাঠে ভোটারদের মাঝে কোন ধরনের ভয়ভীতি নেই উল্লেখ করে আওয়ামীলীগের প্রার্থী এডভোকেট নুর উদ্দিন চৌধুরীর নয়ন বলেন, মানুষের মাঝে ভোটের আমেজ দেখা দিয়েছে। কখন ভোটাররা কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিবেন,সে অপেক্ষা করছে মানুষ। শতভাগ বিজয়ের ব্যাপারে আশাবাদি তিনি।

অপরদিকে ১ম দফা ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে লক্ষ্মীপুরে রামগতি ও কমলনগর উপজেলার ৬টি ইউপিতে একই দিন ভোট অনুষ্ঠিত হবে। কমলনগর উপজেলার তোরাবগঞ্জ,চরফলকন,হাজিরহাট ও রামগতির চরবাদাম, চরপোড়াগাছা ও চররমজি এসব ইউনিয়ন ভোট গ্রহন অনুষ্ঠিত হবে। ৬টি ইউনিয়নে চেয়ারম্যান পদে ৪০জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্ধিতায় করছেন। মোট ভোটার সংখ্যা-১ লাখ ২৩ হাজার ৩শত ১৪জন।

তবে বিএনপি এ নির্বাচনে অংশ না নিলেও একক ৬টিতে রয়েছে আওয়ামীলীগের একাধিক বিদ্রোহী প্রার্থী। এ নিয়ে আওয়ামীলীগের নেতাকর্মীরা রয়েছেন দ্বিধাদ্বন্ধে। আওয়ামীলীগের দলীয় প্রার্থী ও বিদ্রোহী প্রার্থীরা একে অপরের বিরুদ্ধে হামলা, পাল্টা হামলা ও হুমকি-ধুমকির অভিযোগ তুলেছেন। এদিকে প্রতিটি ইউপিতে প্রচার প্রচারনা গনসংযোগও হামলার ঘটনা ঘটেছে একাধিকবার। আবার অনেকে মামলার ও হামলার ভয়ে রয়েছেন আতংকে। আবার কেউ বলেছেন,ভোট করে লাভ কি। সুষ্ঠ নির্বাচন নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন তারা।

তোরাবগঞ্জ ইউপি আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী চেয়ারম্যান প্রার্থী ফয়সাল আহমদ রতন অভিযোগ করে বলেন, আওয়ামীলীগের চেয়ারম্যান প্রার্থী মির্জা আশ্রাফুল জামাল রাসেলের সমর্থকদের হামলা,মামলার ভয়ে কর্মীরা আতœগোপনে। তারা বলছে, ভোট দিলেও চেয়ারম্যান,না দিলেও চেয়ারম্যান হবে। ইতিমধ্যে ভোটারদের কেন্দ্রে না আসতে হুমধি-ধুমকির দেয়ার অভিযোগ তুলেেেছন তিনি। সুষ্ঠ নির্বাচন নিয়ে সংশয় প্রকাশ করেছেন আওয়ামীলীগের বিদ্রোহী ও স্বতন্ত্র চেয়ারম্যান প্রার্থীরা।

তবে হামলা-মামলাসহ ভয়ভীতির অভিযোগ অস্বীকার করে আওয়ামীলীগের চেয়ারম্যান প্রাথী মির্জা আশ্ররাফুল জামাল রাসেল বলছেন, উন্নয়নের ধারা অব্যাহত রাখতে আবারো নৌকা মার্কায় ভোট চান। বিজয় হলে এলাকায় নানান উন্নয়নমূলক কাজ অব্যাহত থাকবে। বন্ধ হবে চাঁদাবাজি,সন্ত্রাসীসহ বিভিন্ন অপরাধমূলক কর্মকান্ড। একই কথা বলছেন, আওয়ামীলীগের অন্য চেয়ারম্যান প্রার্থীরা।

এ দিকে লক্ষ্মীপুর-২ আসনের রিটানিং অফিসার ও কুমিল্লা আঞ্চলিক নির্বাচন কর্মকর্তা মো. দুলার তালুকদার বলেন, অবাধও শান্তিপূর্ন ভোট গ্রহনের জন্য সকল প্রস্তুুতি সম্পন্ন করেছেন। প্রতিটি কেন্দ্র কে ঝুকিপূর্ণ হিসেবে বিবেচনা করে নিরাপত্তা জোরদার করা হয়েছে। যেন সবাই নিবিগ্নে নিরাপদে ভোট দিতে পারে, সেটা ব্যবস্থা নেয়া হয়েছে। প্রতিটি কেন্দ্রে আইনশৃংখলা বাহিনীর পাশাপাশি নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট নিয়োজিত রয়েছে।

জেলা প্রশাসক মো. আনোয়ার হোছাইন আকন্দ ও পুলিশ সুপার ড. এএইচ এম কামরুজ্জামান বলেছেন, অবাধ ও শান্তিপূর্ন ভোট গ্রহনের জন্য সক প্রস্তুুতি সম্পন্ন করা হয়েছে। সবাই নিভিগ্নে ও নিরাপদে যেন মানুষ কেন্দ্রে গিয়ে ভোট দিতে পারে। সে অনুযায়ী আইনশৃংখলা বাহিনী ও নির্বাহী ম্যাজিস্টেটরা নিয়োজিত থাকবে। কোন ধরনের অপ্রীতি ঘটনার চেষ্টা করলে কঠোর হাতে দমন করা হবে বলে হুশিয়ারী দেন এ দুই কর্মকর্তা।


© স্বত্ব ২০২০ | About-US | Privacy-PolicyContact