আজ মঙ্গলবার, ১৬ অগাস্ট ২০২২, ০৭:৩০ অপরাহ্ন

Logo
সংবাদ শিরোনাম:
লক্ষ্মীপুরের বছরজুড়ে আলোচিত যত ঘটনা

লক্ষ্মীপুরের বছরজুড়ে আলোচিত যত ঘটনা

নিজস্ব প্রতিবেদক: বিদায় নিতে চলছে ২০২১ সাল। এ বিদায়ী বছরে নানা ঘটনার জন্ম হয়েছে লক্ষ্মীপুরে।

বছরের অর্ধেকজুড়ে করোনা মহামারিতে বিপর্যস্ত ছিল জেলাবাসী। চলতি বছর করোনার প্রকোপ কিছুটা কম থাকলেও লকডাউনের কারণে ব্যবসায়ীসহ সাধারণ মানুষ অর্থনৈতিকভাবে বিপর্যস্ত হয়েছে।

 

করোনার মহামারিতেও বিভিন্ন ঘটনার ভিড়ে জেলাতে সবচেয়ে বেশি আলোচিত মেঘনা নদীর ‘তীররক্ষা বাঁধ’ প্রকল্প। আলোচনার কেন্দ্রবিন্দুতে ছিল সংসদ নির্বাচন এবং পৌর ও ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচন।

জনপ্রতিনিধি হিসেবে বেশি আলোচনায় আসেন লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সাবেক সংসদ সদস্য কাজী শহীদ ইসলাম পাপুল। আলোচনায় ছিল পৌরসভা নির্বাচনও।

পাপুল কাণ্ড:
চলতি বছরের ২৮ জানুয়ারি অর্থ ও মানবপাচারের মামলায় কুয়েতের একটি আদালতের দেওয়া চার বছরের কারাদণ্ডে ওই দেশের কারাগারে আছেন লক্ষ্মীপুর-২ আসনের (রায়পুর ও সদর আংশিক) বহুল আলোচিত সাবেক সংসদ সদস্য কাজী শহিদ ইসলাম পাপুল। পাচারের শিকার পাঁচ বাংলাদেশির অভিযোগের ভিত্তিতে ২০২০ সালের ৬ জুন তাকে কুয়েতের আইন-শৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী গ্রেফতার করে। তার বিরুদ্ধে মানবপাচার, অর্থপাচার ও ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠানের কর্মীদের শোষণের অভিযোগ এনেছে কুয়েতি প্রসিকিউশন। পাপুল একজন সাধারণ কর্মী হিসেবে কুয়েতে গেলেও সেখানে মারাফি কুয়েতিয়া কোম্পানি নামে একটি প্রতিষ্ঠানের মালিক হন।

বিপুল অর্থের মালিক হয়ে অনেকটা নাটকীয়ভাবে তিনি লক্ষ্মীপুর-২ আসনের সংসদ সদস্য নির্বাচিত হন। তখন অভিযোগ ওঠে, ওই আসনের মহাজোটের প্রার্থী লাঙ্গল প্রতীকের মোহাম্মদ নোমানকে অর্থের বিনিময়ে হটিয়ে নির্বাচন থেকে দূরে রাখেন। এতে জেলা এবং উপজেলা আওয়ামী লীগের নেতারা তাকে সহযোগিতা করেন। তখন মোটা অংকের অর্থের লেনদেনের অভিযোগ ওঠে। যা দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক) পর্যন্ত গড়ায়।

কুয়েতের আদালতে দণ্ডিত হওয়ার পর কাজী শহিদ ইসলাম পাপুল সংসদ সদস্য পদ হারান। গত ২৮ জানুয়ারি রায়ের দিন নির্বাচন কমিশন তার আসনটি শূন্য ঘোষণা করে উপ-নির্বাচনের তফসিল ঘোষণা করেন। পরে এ আসন থেকে আওয়ামী লীগ থেকে দলীয় মনোনয়ন পান জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোটেক নুর উদ্দিন চৌধুরী নয়ন। ২১ জুন অনুষ্ঠিত উপ-নির্বাচনে সংসদ সদস্য হিসেবে নির্বাচিত হন তিনি।

লক্ষ্মীপুর পৌরসভা:
জেলা আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক ও বহুল আলোচিত ও সমালোচিত লক্ষ্মীপুর পৌরসভার সাবেক মেয়র আবু তাহেরকে নিয়ে আলোচনার ঝড় বইছে। টানা তিন মেয়াদে দায়িত্ব পালন করার পর গত ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত পৌর নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন বঞ্চিত হয়ে বাদ পড়েন আবু তাহের। তার স্থলে জেলা আওয়ামী লীগের সাংস্কৃতিক বিষয়ক সম্পাদক মোজাম্মেল হায়দার মাসুম ভূঁইয়াকে দলীয় মনোনয়ন দিলে নির্বাচনে তিনি বিজয়ী হন। এ বিজয়ের মাধ্যমে পৌরসভাসহ জেলাব্যাপী আবু তাহেরের যে সাম্রাজ্য ছিল, সেটার পতন ঘটে। আবু তাহেরের পাশাপাশি আলোচনায় আসেন তার মেঝো ছেলে সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান ও জেলা যুবলীগের সাবেক সভাপতি একেএম সালাহউদ্দিন টিপু। গত ২১ সেপ্টেম্বর জেলা যুবলীগের বর্ধিত সভায় যোগ দিতে আসা কেন্দ্রীয় নেতাদের ফুল দিয়ে বরণ করে নেওয়ার সময় টিপু ও তার লোকজনের হামলায় সাবেক ছাত্রলীগ নেতা সৈয়দ নুরুল আজিম বাবরসহ ১০ নেতাকর্মী আহত হন। গত ২ অক্টোবর জেলা যুবলীগের কমিটি বিলুপ্ত ঘোষণা করা হয়। নতুন কমিটি ঘোষণা নিয়ে এখন আলোচনা চলছে পদপ্রত্যাশী ও সাধারণ নেতাকর্মীদের মধ্যে।

রামগতি উপজেলা চেয়ারম্যান:
গত ২৮ ফেব্রুয়ারি জেলার রামগতি উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান শরাফ উদ্দিন আজাদ সোহেলকে দায়িত্ব থেকে অপসরাণ করে পদটি শূন্য ঘোষণা করা হয়। তার বিরুদ্ধে অবৈধভাবে সরকারি গাছ কাটা ও যথা সময়ে কুকুরে কামড়ের ভ্যাকসিন সরবরাহ না করার অভিযোগ আনা হয়। তবে তদন্তে অভিযোগ প্রমাণ না হওয়ায় তাকে স্বপদে বহাল রাখতে গত ৪ মে স্থানীয় সরকার বিভাগ থেকে প্রজ্ঞাপন জারি করা হয়।

নদী ভাঙন ও ক্ষতিগ্রস্ত উপকূলীয় বাসিন্দারা:
লক্ষ্মীপুরের রামগতি ও কমলনগর উপজেলার মেঘনা নদী সংলগ্ন বাসিন্দারা অব্যাহত নদী ভাঙনের শিকার হচ্ছেন। ভাঙনে তারা যখন দিশেহারা, ঠিক সে সময় সুসংবাদ আসে ভাঙন রোধ প্রকল্পের। গত ১ জুন একনেক (জাতীয় অর্থনৈতিক পরিষদের নির্বাহী কমিটি ) বৈঠকে নদী ভাঙন রোধে গৃহীত প্রকল্পে দুই উপজেলার ৩১ কিলোমিটার তীররক্ষা বাঁধ নির্মাণে তিন হাজার ৮৯ কোটি ৯৬ লাখ ৯৯ হাজার টাকা ব্যয় নির্ধারণ করা হয়েছে। সেনাবাহিনীর মাধ্যমে বাঁধ নির্মাণের দাবি থাকলেও নানা জটিলতার কারণে ঠিকাদারের মাধ্যমে বাঁধ নির্মাণের টেন্ডার দেওয়া হয়। চলতি বছরের শুষ্ক মৌসুমে বাঁধ নির্মাণ কাজ শুরু না হওয়ায় হতাশা হয়েছে পড়েছেন উপকূলীয় বাসিন্দারা। বাঁধ না থাকায় চলতি বছর অন্তত ছয় বার মেঘনার অতিরিক্ত জোয়ারের পানি লোকালয়ে ঢুকে পড়ে। এতে ফসল তলিয়ে এবং বাড়ি-ঘর নষ্ট হয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হন স্থানীয় লোকজন। সর্বশেষ অসময়ের বৃষ্টিতে ক্ষতি হয়েছে আমন ও শীতকালীন সবজির।

এদিকে লক্ষ্মীপুর-রামগতি সড়কের ভবানীগঞ্জের মিয়ারবেড়ি এলাকায় বসবাসরত নদীভাঙা অসহায়দের জন্য কবরস্থান ও মসজিদের ব্যবস্থা করে দেন পুলিশের মহাপরিদর্শক (আইজিপি) ড. বেনজীর আহমেদ। নিজস্ব অর্থায়নে সুতারগোপ্তা এলাকায় ২৯ শতাংশ জমি কিনে গণকবর ও একটি মসজিদ নির্মাণ করে গত ৫ অক্টোবর আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করেন তিনি।

জেলে ট্রলারে রহস্যজনক অগ্নিকাণ্ড ও জেলে হত্যা:
গত ২৭ ফেব্রুয়ারি বঙ্গোপসাগরে মাছ ধরার ট্রলারে বিস্ফোরণে অগ্নিদগ্ধ হয়ে লক্ষ্মীপুরের রামগতির সাত জেলের মৃত্যু হয়। রহস্যজনক এ ঘটনায় তাদের সঙ্গে আরও ১২ জন অগ্নিদগ্ধ হন। ঘটনাটি দেশব্যাপী আলোচিত হলেও নিহতদের পরিবার বড় কোনো সহায়তা পায়নি।

গত ২০ মে গভীর সমুদ্রে ফেলে দিয়ে লক্ষ্মীপুরের দুই জেলেসহ চার জেলেকে হত্যার রহস্য উৎঘাটন ছিল আরেকটি আলোচিত ঘটনা। হত্যার ঘটনাটি রামগতির বড়খেড়ি নৌ-পুলিশ ফাঁড়ির তদন্তে বের হয়ে আসে। চট্টগ্রামের ফিশারিঘাটের আড়তদার ইউছুফ মিয়ার সঙ্গে এক লাখ টাকা চুক্তিতে জেলেদের হত্যা করেন নাসির নামে আরেক জেলে। এ ঘটনায় জড়িতদের মধ্যে পুলিশ তখন তিনজনকে গ্রেফতার করে। নৌ-পুলিশের আরেকটি বড় সাফল্য ছিল, মজুচৌধুরীর হাট সংলগ্ন মেঘনা নদী থেকে গত ১১ ডিসেম্বর বিকেলে পাঁচ জলদস্যুকে অস্ত্রসহ আটক করে তাদের কবল থেকে পাঁচ জেলেকে উদ্ধার করা।

ওমানে তিন প্রবাসীর মৃত্যু:
গত ৩ অক্টোবর রাতে ওমানে ঘূর্ণিঝড় শাহিনের আঘাতে একই পরিবারের শামছুল ইসলাম (৫০), জিল্লাল হোসেন (৪০) ও আমজাদ হোসেন হৃদয় (২৫) নামে তিন প্রবসাী বাংলাদেশি নিহত হন। তারা লক্ষ্মীপুর সদর উপজেলার পার্বতীনগর গ্রামের মধ্য মকরধ্বজ গ্রামের বাসিন্দা। তাদের মৃতদেহ এখনো ওমানের একটি মর্গে রয়েছে। পরিবারের লোকজন মৃতদেহের অপেক্ষায় আছে।

গত ১৩ নভেম্বর সানজিদা আক্তার ইভা (১৫) ও ফাহমিদা আক্তার (১৬) নামে দুই স্কুলছাত্রী কাভার্ডভ্যান চাপায় নিহতের ঘটনাও স্বজনদের কাঁদিয়েছে। তারা দুইজন মামাতো-ফুফাতো বোন।

চাঞ্চল্যকর একটি ঘটনার জন্ম দিয়েছে একজন পাষণ্ড মা। স্বামীর সঙ্গে অভিমান করে নিজের আড়াই বছরের ছেলেকে বটি দিয়ে গলা কেটে হত্যা করে কারাগারে বন্দি আছেন তিনি। সৌদি প্রবাসী আজিমুর রহমান তার স্ত্রী সাবিনা ইয়াসমিনকে মোবাইল ফোনে কল দিয়ে ডিভোর্সের হুমকি দেওয়ায় সাবিনা তার ছেলে আয়ানুর রহমান আয়ানকে গলা কেটে হত্যা করেন বলে পুলিশ জানায়। গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাত পৌনে ১১টার দিকে জেলার সদর উপজেলার চাঁদখালী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ছয় ছাত্রের চুল কেটে দেওয়া শিক্ষক:
ছয় ছাত্রের চুল কেটে দিয়ে দেশব্যাপী আলোচনায় আসেন জেলার রায়পুর উপজেলার বামনী কাজীরদিঘির পাড় আলিম মাদ্রাসার শিক্ষক মো. মঞ্জুরুল কবির মঞ্জু। এ ঘটনার একটি ভিডিও গত ৮ অক্টোবর সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল এবং গণমাধ্যমে সংবাদ প্রকাশিত হলে ওই রাতেই পুলিশ তাকে আটক করে। এক ছাত্রের মায়ের দায়ের করা মামলায় তাকে কারাগারে যেতে হয়েছে। দুই সপ্তাহ পর জামিনে মুক্তি পেয়ে গত ২৮ নভেম্বর তৃতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে বামনী ইউপি চেয়ারম্যান পদে অংশ নিয়ে আওয়ামী লীগ মনোনীত প্রার্থীর কাছে পরাজিত হন।

লঞ্চ চলাচল চালু ও বন্ধ এবং পুকুরে ইলিশ:
জেলাবাসীর দীর্ঘদিনের হতাশাকে দূর করে গত ১৫ নভেম্বর লক্ষ্মীপুরের মজুচৌধুীর হাট-ঢাকার সদরঘাট রুটে চালু হয়েছিল লঞ্চ সার্ভিস। তবে যাত্রী সংকটের মুখে কয়েকদিনের মাথায় লঞ্চটি চলাচল বন্ধ হয়ে যায়। কমলনগরবাসীকে অবাক করে গত ২৪ নভেম্বর একটি পুকুরে জেলেদের জালে ১০টি জাটকা (ছোট ইলিশ) পাওয়াকে কেন্দ্র করে চাঞ্চল্য সৃষ্টি হয়। তবে যে পুকুটিতে ইলিশ পাওয়া গেছে, সেটি মেঘনা নদীর তীরবর্তী হওয়ায় জোয়ারের পানির সঙ্গে ইলিশের পোনা ঢুকে থাকতে পারে বলে ধারণা করছেন স্থানীয়রা এবং মৎস্য বিশেষজ্ঞরা।

বিদ্যুৎপৃষ্ট হয়ে হাত হারালো স্কুলছাত্র:
রামগতির চর আলগীতে পল্লী বিদ্যুতের অরক্ষিত তারে জড়িয়ে তামিম ইকবাল নামে পঞ্চম শ্রেণির এক ছাত্র গুরুতর আহত হলে তার একটি হাত কেটে ফেলতে হয়। এ ঘটনায় লক্ষ্মীপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির অবহেলাকে দায়ী করে উচ্চ আদালতে রিট করেন তামিমের বাবা শাহাদাত হোসেন। এতে পরিবারের ১০ কোটি টাকা ক্ষতিপূরণ এবং চিকিৎসা বাবদ ৫০ লাখ টাকা দাবি করা হয়। আদালত গত ৬ ডিসেম্বর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতিকে তাৎক্ষণিক পাঁচ লাখ টাকা চিকিৎসা বাবদ দেওয়ার নির্দেশ দেন। একই সঙ্গে জ্বালানি সচিব, পল্লী বিদ্যুতায়ন বোর্ডের চেয়ারম্যান, লক্ষ্মীপুর পল্লী বিদ্যুৎ সমিতির জিএমসহ সংশ্লিষ্ট পাঁচজনকে রুলের জবাব দিতে বলা হয়েছে।

ইউপি নির্বাচনে দুইজনের মৃত্যু:
গত ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত ইউনিয়ন পরিষদ (ইউপি) নির্বাচনে রামগঞ্জের ইছাপুর ইউনিয়নে ভোট গ্রহণের দিন সংঘর্ষে ওই ইউনিয়ন ছাত্রলীগ সভাপতি সাজ্জাদ হোসেন সজীব নিহত হন। এ ঘটনায় নবনির্বাচিত ইউপি চেয়ারম্যান আমির হোসেনকে আসামি করে থানায় মামলা করা হয়।

গত ৮ ডিসেম্বর দিনগত রাত ৩টার দিকে ঢাকা মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয় ওই মামলার প্রধান আসামি মাসুদ আলমের। ভোট গ্রহণের দিন সংঘর্ষে তিনি গুরুতর আহত হন। গ্রেফতারের পর কারা হেফাজতে থেকে তিনি চিকিৎসা নেওয়ার সময় মারা যান। তার মৃত্যুর ঘটনায় রামগঞ্জের কর্মরত সাংবাদিক জাকির হোসেন মোস্তানকে আসামি করে হত্যা মামলা করা হলে সাংবাদিকদের মধ্যে নিন্দার ঝড় ওঠে।

 

 

 

সূত্রে- বাংলানিউজ২৪ডটকম


© স্বত্ব ২০২০ | About-US | Privacy-PolicyContact